Facebook SDK

CPA (সিপিএ) মার্কেটিং কি এবং কিভাবে কাজ করে? নিয়ে নিন  বেসিক থেকে  অ্যাডভান্স সিপিএ মার্কেটিং কোর্স ।

CPA (সিপিএ) মার্কেটিং কি এবং কিভাবে কাজ করে? বেসিক ধারণা সহ নিয়ে নিন একটি অ্যাডভান্স সিপিএ মার্কেটিং কোর্স

CPA মানে হলো “cost per action” বা “cost for actionমানে, একটি ধরে দেওয়া কাজ সম্পূর্ণ সঠিক ভাবে করাতে পারলে আপনাকে কিছু টাকা কমিশন হিসেবে দেওয়া হবে।

এটাকে একটি অনলাইন মার্কেটিং এর কৌশল হিসেবে ধরা যেতে পারে, যেখানে কোম্পানি গুলো নিজের business, service বা product গুলোর প্রচারের ক্ষেত্রে, “publishers” এবং “advertisers” দের সাহায্য নেয়।

 প্রচার বলতে, কোম্পানি গুলো কিছু কাজ ধরে দিবেন যেমন, software download, form fill up, email submission, form registration, survey ইত্যাদি।

আর, একজন publisher হিসেবে, এই ধরণের কাজ গুলো আপনার করাতে হবে নিজের blog বা website এর মাধ্যমে।

সফলতাপূর্বক কাজ গুলো করাতে পারলে, কোম্পানির তরফ থেকে আপনি প্রত্যেক কাজের বিনিময়ে কমিশন পাবেন।

সিপিএ মার্কেটিং এর প্রক্রিয়া এবং এফিলিয়েট মার্কেটিং এর প্রক্রিয়াতে কেবল এটাই পার্থক্য যে, এখানে এফিলিয়েট মার্কেটিং এর মতো আপনার কিছু বিক্রি করাতে হবেনা।

সিপিএ এর পূর্ণরূপ “cost per acquisition” বলেও বলা হয়।

মানে, কিছু ধরে দেওয়া কাজ গুলো blog বা website এ আশা ইউসার (user) দের দ্বারা করানো।

এবং যেই কাজ করানোর বিনিময়ে কোম্পানি আপনাকে কমিশন দিবে।


CPA মার্কেটিং এর লাভ কি?

যদি আপনার একটি website, blog, application বা ভালো সংখ্যাই email list রয়েছে, তাহলে ইন্টারনেটে থাকা অন্যান্য মাধ্যম গুলোর তুলনায় CPA মার্কেটিং থেকে অধিক সহজে অনলাইন ইনকাম করতে পারবেন।

তাছাড়া, সিপিএ মার্কেটিং এর আরো অন্যান্য কিছু লাভ রয়েছে যেমনঃ

  • এই এফিলিয়েট মার্কেটিং এর প্রক্রিয়াতে কোনো ধরণের বিক্রি (sell) না করিয়েই ইনকাম সম্ভব।


  • Form fill-up, survey, app install ইত্যাদি কাজ গুলো করিয়ে ইনকাম করুন।


  • CPA marketing এর ক্ষেত্রে, অনেক সহজেই conversion হওয়ার সুযোগ থাকছে।


এখানে আপনার তেমন কোনো কৌশল এর প্রয়োজন নেই কেবল, offer গুলো দেখুন এবং নিজের website, blog বা application ট্রাফিক এর মাধ্যমে করিয়ে নিন।

মনে রাখবেন, এফিলিয়েট মার্কেটিং এর ক্ষেত্রে আপনার পণ্য বিক্রি করাতে হয়, এবং লোকেরা সহজে আপনার ওয়েবসাইট থেকে দেখে জিনিস কিনতে চাইবেন না।

তাই, এই ক্ষেত্রে টাকা আয় করাটা অনেক কষ্টের ব্যাপার।

কিন্তু, CPA মার্কেটিং এর ক্ষেত্রে কেবল, form fill-up, survey, app install এর মতো সাধারণ কাজ আপনার করাতে হবে।

তাই, এই ক্ষেত্রে লোকেরা অনেক সহজেই কাজ গুলো করে নেয় ফলে, অনেক সহজেই আপনার ইনকাম হয়ে থাকে।

সিপিএ কিভাবে কাজ করে, এই প্রশ্নের উত্তর অনেক সোজা।

দেখুন, ইন্টারনেটে কিছু advertisement company রয়েছে, যেগুলোতে বিভিন্ন কোম্পানি গুলো তাদের business, products বা service গুলোর সাথে জড়িত প্রচার বা অন্যান্য কাজ করানোর ক্ষেত্রে সংযুক্ত হয়।

এই ক্ষেত্রে, উৎপাদন কোম্পানি গুলো এই advertisement company গুলোকে কিছু টাকা অবশই দেন।

এই ধরণের advertisement company গুলোকে বলা হয় “affiliate network”, “CPA network” ইত্যাদি।

এখন, যদি আপনার কাছে একটি website, blog, application বা ভালো email list রয়েছে, তাহলে এই CPA network গুলোতে আপনি রেজিস্টার করে একজন publisher হিসেবে account তৈরি করতে পারবেন।

আর তারপর, CPA network গুলোতে থাকা বিভিন্ন কাজ গুলো আপনি নিজে নিজের blog বা ওয়েবসাইটে আসা traffic ও visitors দের দিয়ে করিয়ে নিতে পারবেন।

সফলতাপূর্বক ভাবে ধরেদেওয়া কাজ গুলো করিয়ে নিতে পারলে, সেই CPA network গুলোর থেকে আপনাকে কিছু টাকা কমিশন হিসেবে দেওয়া হয়।এভাবেই কাজ করে সিপিএ মার্কেটিং এর প্রক্রিয়া।

ডিজিটাল মার্কেটিং কি ? ( সাথে নিয়ে নিন ফ্রি ডিজিটাল মার্কেটিং কোর্স).alert-success 

সিপিএ মার্কেটিং করতে কি কি লাগে ?

এমনিতে CPA মার্কেটিং কিন্তু affiliate মার্কেটিং এর মতোই।

আর তাই, এফিলিয়েট মার্কেটিংকে টাকা আয় করার ক্ষেত্রে যা যা প্রয়োজন, সবটাই আপনার এখানেও লাগবে।

১.একটি blog, website বা application এর প্রয়োজন হবে।

২.আপনার application বা website এ ভালো পরিমানের visitors ও traffic থাকতে হবে।

৩.একটি ভালো CPA network এর সাথে সংযুক্ত হতে হবে।

৪.এবার, CPA এর কাজ গুলো সিপিএ নেটওয়ার্ক থেকে নিয়ে, নিজের website বা application এ প্রচার করুন এবং user ও visitors দের সেই কাজ গুলো করার জন্য আগ্রহী করুন।

এবার, CPA এর কাজ গুলো সিপিএ নেটওয়ার্ক থেকে নিয়ে, নিজের website বা application এ প্রচার করুন এবং user ও visitors দের সেই কাজ গুলো করার জন্য আগ্রহী করুন।

৫.কাজ গুলোর বিনিময়ে টাকা আয় করুন।

বাস, CPA marketing করার জন্য কেবল এতটুকুই প্রয়োজনীয়তা রয়েছে।

Lern Carding -ক্রেডিট কার্ড হ্যাকিং বা ফ্রী শপিং Course.alert-success 

 CPA Marketing  কিভাবে শিখবেন?

আপনি অনেকভাবেই শিখতে পারবেন। এখন কথা হল, কিভাবে শিখলে আপনি সহজেই শিখতে পারবেন। 

অনলাইনে কোর্স করাঃ

বর্তমানে অনলাইনের মাধ্যমে সকল কিছু শিখতে পারবেন। আপনি ইউডেমি, কোর্সেরা, স্কিলশেয়ার এর মত প্রতিষ্ঠান গুলো থেমে অল্প টাকায় একদম প্রফেশনাল কোর্স গুলো করতে পারবেন। এই কোর্সগুলো ইংরেজি ভাষায় তাই আপনাকে অল্প একটু হলেও ইংরেজি জানতে হবে।


ট্রেনিং সেন্টার থেকে শিখাঃ

আপনার আশেপাশে অনেক ট্রেনিং সেন্টার পাবেন। যেখান থেকে আপনি কোর্স করে শিখে নিতে পারবেন। ট্রেনিং সেন্টার এ শিখার ক্ষেত্রে অবশ্যই সঠিক এবং ভালো মানের ট্রেনিং সেন্টার থেকে শিখবেন। অন্যতায় আপনার সময় এবং টাকা দুইটাই বৃথা যাবে।


প্রাইভেট টিউটর এর কাছ থেকে শিখাঃ

একটু খোজ নিলেই আপনার আশেপাশে অনেক প্রফেশনাল ডিজিটাল মার্কেটার পাবেন। যাদের কাছ থেকে আপনি প্রাইভেটলি শিখতে পারবেন। শিখার ক্ষেত্রে এটাই সবচেয়ে সেরা মাধ্যম। কারন, আপনি সবকিছু সঠিকভাবে বুঝতে এবং সহজ ভাষায় শিখতে পারবেন।

নিজে নিজে শিখাঃ

আপনি যদি উপরের কোন মাধ্যমেই নয় নিজে নিজে শিখবেন তাহলেও পারবেন। এর জন্য আপনাকে অনেক সময় ব্যয় করতে হবে। নিজে নিজে শিখার জন্য আপনাকে গুগল এবং ইউটিউব থেকে একটা একটা সার্চ করে খুজে খুজে শিখতে হবে। আপনার অজানা সবকিছুই গুগল এবং ইউটিউব থেকে শিখে নিতে পারবেন।


Master The C Programming - প্রাথমিক থেকে অ্যাডভান্স লেভেল ।alert-success 

নিজে নিজে শেখার জন্য নিজের Course টি দেখতে পারেন।

  • কোর্সের নাম : CPA Marketing 
  • ভাষা : Bangla                                         

  •  Size : 1.82 GB



Post a Comment

Previous Post Next Post